1. ajkerfaridpur2020@gmail.com : Monirul Islam Titu : Monirul Islam Titu
  2. jmitsolution24@gmail.com : support :
  3. titunews@gmail.com : Monirul Islam Titu : Monirul Islam Titu
ফরিদপুরে জিংক ধান ও চাল বাজারজাতকরণ
বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১০:৫২ অপরাহ্ন
নোটিশ বোর্ড :
আজকের ফরিদপুর নিউজ পোর্টালে আপনাদের স্বাগতম । করোনার এই মহামারীকালে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। সচেতনে সুস্থ থাকুন।

ফরিদপুরে জিংক ধান ও চাল বাজারজাতকরণ

  • Update Time : শুক্রবার, ৩ জুন, ২০২২
  • ৭২ জন পঠিত
ফরিদপুরে জিংক ধান ও চাল বাজারজাতকরণ
ফরিদপুরে জিংক ধান ও চাল বাজারজাতকরণ

স্টাফ রিপোর্টার : প্রতিবছর জিংকের অভাবে ৩৬ ভাগ শিশু ও ৫৭ ভাগ মহিলা অপুষ্টিতে ভুগছে। পাশাপাশি ৪৪ ভাগ কিশোরী জিংকের অভাবে খাটো হয়ে যাচ্ছে। হারভেস্ট বাংলাদেশের গবেষণায় এই চিত্র উঠে এসেছে। বিশেষজ্ঞরা জিংক সমৃদ্ধ খাদ্য উৎপাদন ও বছরব্যাপী সরবরাহের ওপর গুরত্ব দিচ্ছেন। জিংকসমৃদ্ধ ধান উৎপাদনের মাধ্যমেই পুষ্টির চাহিদা পূরণ সম্ভব। হারভেস্টপ্লাস বাংলাদেশের সহযোগীতায় আমরা কাজ করি (একেকে) এর বাস্তবায়নে বৃহস্পতিবার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর খামারবাড়ি, ফরিদপুরে সম্মেলন কক্ষে “বায়োফর্টিফাইড জিংক ধানের উৎপাদন এবং বাজারজাত সম্প্রসারন শীর্ষক এক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়।

কর্মশালায় সভাপতিত্ব করেন আমরা কাজ করি (একেকে) এর নির্বাহী পরিচালক এম এ জলিল। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তর ফরিদপুরের উপ-পরিচালক ডঃ মোঃ হযরত আলী। আমরা কাজ করি (একেকে) এর সমন্বয়কারী এম এ কুদ্দুস মিয়ার সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ফরিদপুর জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কাজী সাইফুদ্দিন, জেলা সিনিয়র বিপনণ কর্মকর্তা মোঃ শাহাদাত হোসেন, হারভেস্টপ্লাস বাংলাদেশের বিভাগীয় সমন্বয়কারী মোঃ জাহিদ হোসেন, হারভেস্টপ্লাস সিবিসি প্রকল্পের কর্মকর্তা মোঃ রুহুল কুদ্দুস।

জিংক ধানের বর্তমান অবস্থা, বাজার সম্প্রসারন ও আগামী দিনে জিংক চাল বানিজ্যিকিকরণ পরিকল্পনা তুলে ধরেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তর ফরিদপুরের উপ-পরিচালক ডঃ মোঃ হযরত আলী । তিনি বলেন, বাজারে জিংক চাল হিসেবে ব্রান্ডিং এর মাধ্যমে সরবরাহ নিশ্চিত করতে হবে এবং ভোক্তাদের মাঝে জিংক চালের ভাত খাওয়ার বিষয়ে উৎসাহিত করতে হবে। অনুষ্ঠানের সভাপতি জিংক চালের উপকারিতা উল্লেখপূর্বক সবাইকে জিংকের ঘাটতি পূরণে জিংক চালের ভাত খাওয়ার উপর তাগিদ দেন। অতিথিবৃন্দ জিংক চালের নতুন নতুন উদোক্তাদের সার্বিক সহযোগীতা করার আশ্বাস ব্যক্ত করেন। উক্ত কর্মশালায় সরকারি ও বেসরকারি বিভিন্ন বিভাগের প্রায় ৫০ জন প্রতিনিধি অংশগ্রহণ করেন এবং বায়োফর্টিফাইড জিংক ধানের প্রসার ও বানিজ্য সম্প্রসারনে যৌথভাবে কাজ করার বিষয়ে একমত পোষণ করেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© পদ্মা বাংলা মিডিয়া হাউজের একটি প্রতিষ্ঠান
Design & Developed By JM IT SOLUTION