1. ajkerfaridpur2020@gmail.com : Monirul Islam Titu : Monirul Islam Titu
  2. jmitsolution24@gmail.com : support :
  3. titunews@gmail.com : Monirul Islam Titu : Monirul Islam Titu
ফরিদপুরে আতঙ্ক উৎকণ্ঠায় পদ্মা পাড়ের মানুষ
বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১০:১২ অপরাহ্ন
নোটিশ বোর্ড :
আজকের ফরিদপুর নিউজ পোর্টালে আপনাদের স্বাগতম । করোনার এই মহামারীকালে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। সচেতনে সুস্থ থাকুন।

ফরিদপুরে আতঙ্ক উৎকণ্ঠায় পদ্মা পাড়ের মানুষ

  • Update Time : বুধবার, ২২ জুন, ২০২২
  • ৩৮ জন পঠিত
ফরিদপুরে আতঙ্ক উৎকণ্ঠায় পদ্মা পাড়ের মানুষ
ফরিদপুরে আতঙ্ক উৎকণ্ঠায় পদ্মা পাড়ের মানুষ

স্টাফ রিপোর্টার : ফরিদপুর সদরের ডিক্রিরচর ও নর্থচ্যানেল ইউনিয়নের বিভিন্ন স্থানে বানের পানিতে প্লাবিত হয়েছে। সেই সাথে দেখা দিয়েছে নদী ভাঙ্গন। আতঙ্ক উৎকণ্ঠায় পদ্মা পাড়ের সাধারণ মানুষ ইতিমধ্যে নর্থচ্যানেল ইউনিয়নের ইউসুফ মাতুব্বর ডাঙ্গীর বেশ কিছু বসতি নদী ভাঙ্গনের কবলে পড়ে সব হাড়িয়ে অনত্র আশ্রয় নিয়েছে। ভিটে হারানো অসহায় মানুষের আর্তনাত স্থানীয়দেরকেও নাড়া দিয়েছে।

মঙ্গলবার ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতি গ্রস্থদের বিষয়ে ব্যবস্থা নেবার আশ্বাস দিয়ে এসেছেন সদর ইউএনও লিটন ঢালী। নদী ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ শেখ সত্তার, মোঃ ফজলুল হক, মান্নান বেপারীসহ অনেক পদ্মা পাড়ের বাসিন্দা বলেন, আমরা সব হারিয়ে এখন নিস্ব “গাঙ্গে খাইলে কিছুই থাহে না….. সরেজমিন ঘটনা স্থলে গিয়ে দেখা যায় কেউ কেউ অবশিষ্ট বাঁশের বেরা খুটি খুলে নিচ্ছে কেউ কেউ শ্রমিক লাগিয়ে ইটের দেওয়াল ভেঙ্গে ইট খুলে নেবার চেষ্টা করছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, পদ্মা নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। কয়েকদিনের বৃষ্টিতে চরাঞ্চলের কৃষকের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। ২৬৪ হেক্টর জমির বাদাম তলিয়ে গেছে। গত কয়েকদিনে গোয়ালন্দ পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি ২৫ সেন্টিমিটার বেড়ে বিপদ সীমার ০.৭ মিটার নিজ দিয়ে প্রভাবিত হচ্ছে। এখানে বিপদ সীমার লেভেল ৮.৬৫ সেন্টিমিটার এতে জেলার পদ্মা, মধুমতি, আরিয়াল খাঁ ও কুমার নদের পানি বৃদ্ধি পেয়ে নি¤œ অঞ্চলে প্রবেশ করতে শুরু করেছে।

অন্যদিকে ফরিদপুরের চরভদ্রাসন উপজেলার ভাঙ্গন ঝুঁকিতে ৩৫০টি পরিবার মঙ্গলবার ২১ জুন চরভদ্রাসন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানজিলা কবির ত্রপা ভাঙ্গনের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ভাঙ্গন এলাকায় কিছু বস্তা পানির ¯্রােতে বিলিন হয়ে গেছে। তবে সেখানে প্রতিরোধের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। চরভদ্রাসন উপজেলার চরহরিরামপুর ইউনিয়নের সবুল্লা শিকদারের ডাঙ্গী গ্রামের নদীর বাঁধে পানি উন্নয়ন বোর্ডের জিও ব্যাগ ডাম্পিং প্রায় ১০ মিটার জায়গা নদী গর্ভে বিলিন হয়ে গেছে। পদ্মা পাড়ের মানুষের চোখে ঘুম নেই ভাঙ্গন, বানের পানি আতঙ্কে তাদের দিন কাটছে।

ফরিদপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী পার্থ প্রতীম সাহা বলেন, ভাঙ্গন রোধে পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। সবুল্লা শিকদারের ডাঙ্গী গ্রামে ২০০ মিটার স্থায়ী বাঁধের কাজটি পুরোপুরি সম্পূর্ণ করা যায় নি। এ বছর পূর্ব সতর্কতা মূলক প্রকল্প এলাকা ঢালু করে তার উপর জিও ব্যাগের ডাম্পিং করা হয়েছে। ঐ স্থানে ভাঙ্গনের খবর তিনি পেয়েছেন ভাঙ্গন রোধে দ্রæত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ফরিদপুর ডিক্রিরচর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ মেহেদী হাসান মিন্টু বলেন, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছি প্রতিদিন স্থানীয়দের আশ্বস্ত করছি সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সাথে আলোচনা করে ব্যবস্থা নেবার। ডিক্রির চর আওয়ামীলীগ সভাপতি আনোয়ার হোসেন আবু ফকির বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা সব দুর্যোগেই মানুষের পাশে ছিল থাকবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© পদ্মা বাংলা মিডিয়া হাউজের একটি প্রতিষ্ঠান
Design & Developed By JM IT SOLUTION